টানা ৫০ ঘণ্টা চুমুর পুরস্কার বিলাসবহুল গাড়ি! (ভিডিওসহ)

0

অনলাইন ডেস্ক : মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাসের অস্টিনে অনুষ্ঠিত একটি ব্যতিক্রমী প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হয়। সেই প্রতিযোগিতার নাম রাখা হয়েছিল ‘কিস আ কিয়া’। প্রতিযোগীদের জন্য লক্ষ্যমাত্রাটি ছিল যথেষ্ট সাদামাটা। বলা হয়েছিল, একটি ব্র্যান্ড নিউ কিয়া অপটিমা এলএক্স গাড়ির গায়ে নিজের ঠোঁটজোড়া টানা ৫০ ঘণ্টা ঠেকিয়ে রাখতে পারবেন যিনি, তাঁকে বিনামূল্যে সেই গাড়ি দেবে আয়োজক সংস্থা। আর সেই অসাধ্য সাধন করে গাড়িটির মালিক হয়েছেন ৩০ বছরের ডালিনি জয়সূর্য।

প্রতিযোগিতার আয়োজন করেছিল অস্টিনের রেডিও স্টেশন ৯৬.৭ কিস এফএম। প্রতিযোগিতা যখন শুরু হয়, তখন দেখা যায় কুড়ি জন প্রতিযোগী হাজির হয়েছেন পার্টিসিপেট করার জন্য। কিন্তু গাড়ি জেতার জন্যে তাদের যা করতে বলা হয়েছিল, তা মোটেই সহজ ছিল না। আয়োজক সংস্থার তরফে প্রতিযোগিতার প্রথম চার ঘন্টা ফেসবুক লাইভের মাধ্যমে সম্প্রচার করা হয়েছিল। তাতে দেখা যায়, নানা কায়দায় প্রতিযোগীরা তাঁদের স্বপ্নের গাড়িকে চুমু খাচ্ছেন। কেউ শুয়ে পড়েছেন, তো কেউ আবার দু’হাতে গাড়ির উপর ভর দিয়ে দাঁড়িয়ে রয়েছেন। চোখ বন্ধ করে হয়তো নিজের ভালবাসার মানুষের ওষ্ঠাধরের স্পর্শ কল্পনা করছেন তাঁরা।

প্রতিযোগীরা পরে জানান, শারীরিক ভাবে ব্যাপারটা অত্যন্ত কষ্টকর ছিল। অতক্ষণ ধরে সামনের দিকে ঝুঁকে চুমু খেতে গিয়ে অনেকেরই কোমরে বেজায় ব্যথা হয়েছে, কারও ঠোঁটের ছালচামড়া উঠে গিয়েছে। কিন্তু সমস্ত কষ্ট সহ্য করে গাড়িটিকে জিতে নিতে পেরেছেন ডালিনি।

এই ধরনের আজব প্রতিযোগিতা অবশ্য নতুন কিছু নয়। ২০০৭ সাল থেকেই চিন এবং মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের বিভিন্ন অংশে চুমু খেয়ে গাড়ি জেতার প্রতিযোগিতার আয়োজন করে আসছে গাড়ি নির্মাণকারী সংস্থা শেভরোলে। ২০১২ সালে মিচিগান-এ এক ব্যক্তি নাকি টানা ৭০ ঘন্টা ধরে চুমু খেয়ে একটি সেডান জিতে নিয়েছিলেন।

 

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

ব্রেকিং নিউজঃ