কিশোরীকে আত্মহত্যায় প্ররোচনার দায়ে চাঁপাইনবাবগঞ্জে তিনজনের কারাদন্ড

0

চাঁপাইনবাবগঞ্জের সদর উপজেলার গোবরাতলা ইউনিয়নের আমারক গ্রামে শিউলী রানী (১৪) নামে এক কিশোরীকে যৌন হয়রানী করে আত্মহত্যায় প্ররোচনার দায়ে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে দায়েরকৃত মামলার তিন আসামীকে বিভিন্ন মেয়াদে করাদন্ড দিয়েছেন আদালত।

বৃহস্পতিবার দুপুরে আসামীদের উপস্থিতিতে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইবুনাল-২ এর বিচারক জিয়াউর রহমান মামলার তিন আসামী ওই গ্রামেরই মোঃ হোসেনের ছেলে মোঃ খাইরুল (২৪) কে দশ বছর সশ্রম কারাদন্ড ও দশ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে তিন মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ড, মোঃ সাজ্জাদের ছেলে মোঃ ফারুক (২৩) কে পাঁচ বছর সশ্রম করাদন্ড ও পাঁচ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে এক মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ড, সাইফুদ্দিনের ছেলে মোঃ রনি (২৪) কে পাঁচ বছর সশ্রম করাদন্ড ও পাঁচ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে এক মাসের বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান করেন।

এজাহার সুত্র ও অতিরিক্ত সরকারী কৌসুলী আঞ্জুমান আরা জানান, ২০১২ইং সালের ৮ ডিসেম্বর দুপুরে জমি থেকে খড় নিয়ে বাড়ী ফিরছিল শিউলী। পথে দন্ডিতরা তাকে নানা ভাবে যৌন হয়রানী করে। শিউলী তাৎক্ষনিক এর প্রতিবাদ করে ও ঘটনাটি বাড়িতে জানায়। এর মধ্যে আসামীরা পালিয়ে যায়। শিউলীর পিতা-মাতা ঘটনাটি গ্রামবাসীকে জানায়। গ্রামবাসী তাদের এ ব্যাপারে মামলা মোকাদ্দমা না করে মীমাংসার জন্য বলে। কিন্তু বিকেলে শিউলী ঘটনার লজ্জায় ও ঘৃনায় কীটনাশক পান করে আত্মহত্যা করে।

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

ব্রেকিং নিউজঃ