চাঁপাইনবাবগঞ্জে প্রেমিক হত্যায় প্রেমিকার স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি

নিজস্ব প্রতিবেদক: চাঁপাইনবাবগঞ্জের গোমস্তাপুর উপজেলায় প্রেমিককে নিজ বাড়িতে ডেকে নিয়ে পরিকল্পিতভাবে শ্বাসরোধ করে হত্যা মামলার প্রধান আসামি প্রেমিকা জয়তুন নেসা জবা (১৬) শুক্রবার বিকেলে চাঁপাইনবাবগঞ্জ সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট শরিফুল ইসলামের আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ও জেলা গোয়েন্দা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি-ডিবি) মাহবুব আলম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, শুক্রবার বিকেল সাড়ে পাঁচটায় বিজ্ঞ ম্যাজিস্ট্রেট ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি গ্রহণ শেষ করেন। এর আগে বৃহস্পতিবার সকাল নয়টায় চাঁপাইনবাবগঞ্জ শহরের ঢাকা বাসস্ট্যান্ডে ঢাকাগামী কোচ সার্ভিস দেশ ট্রাভেলস কাউন্টার থেকে ঢাকা যাবার সময় জবাকে গ্রেপ্তার করে গোয়েন্দা পুলিশ।

জবা গোমস্তাপুরের কাওয়াভাসা গ্রামের আমিনুল ইসলামের কন্যা ও বসনিটোলা উচ্চবিদ্যালয়ের ১০ শ্রেণির ছাত্রী। গত বছরের ৭ এপ্রিল প্রেমিকা জবা নিজ বাড়িতে প্রেমিক পাশের বসনিটোলা গ্রামের লাল মোহম্মদের ছেলে মাসুদ রানাকে (২২) মোবাইল ফোনে ডেকে নেবার পর সে নিহত হয়। ওই দিনই এ ঘটনায় গোমস্তাপর থানায় জবাকে প্রধান অভিযুক্ত ও তার পরিবারের ১৭ জনকে আসামি করে মামলা করেন নিহতের পিতা। এরপরই ওই পরিবারের সবাই বাড়ি ছেড়ে পালিয়ে যায়।

এজাহার সূত্র ও মামলার তদন্ত কর্মকর্তা জানান, মাসুদ রানার সাথে ১ বছর যাবৎ প্রেমের সম্পর্ক ছিল জবার।

ঘটনার রাতে সে মোবাইল ফোনে মাসুদকে নিজ বাড়িতে ডেকে নেয়। ভোররাতে মাসুদকে জবার বাড়ি থেকে মৃত উদ্ধার করেন তার আত্মীয়রা। এতদিন ওই মামলায় জবা পলাতক ছিল।

Please follow and like us:

Related posts