সারাদেশে সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাণ গেছে ২৪ জনের

অলনিউজ ডেস্ক: গোপালগঞ্জসহ সারাদেশে সড়ক দুর্ঘটনায় অন্তত ২৪ জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে। সেখানে চালকসহ একই পরিবারের পাঁচজন নিহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। নিহত যাত্রীদের মধ্যে ১০ জনই ছিলো মাইক্রোবাসের যাত্রী।

গোপালগঞ্জে মাইক্রোবাস ও বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে চালকসহ একই পরিবারের পাঁচজন মারা গেছে।

কাশিয়ানী থানার ওসি এ কে এম আলীনূর হোসেন জানান, বৃহস্পতিবার সকাল ১০টার দিকে কাশিয়ানী উপজেলার গেড়াখোলায় হতাহতের এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন – বাগেরহাটের হালিম আকন (৪০), তার স্ত্রী আসমা বেগম (৩৫), ছেলে সুজন (১৭) ও শিহাব (৮), শ্যালক বাদশা ফরাজি (৩৭) ও অজ্ঞাতপরিচয় চালক।

সৌদি প্রবাসী হালিম দেশে ফেরার সময় ঢাকার শাহজালাল বিমানবন্দরে তাকে আনতে গিয়েছিল পরিবারের সদস্যরা। হালিম বাগেরহাটের শরণখোলা উপজেলার সাউথখালি ইউনিয়নের খুড়িয়াখালি গ্রামের বাসিন্দা।

টাঙ্গাইলের ধনবাড়ীতে সকালে হাঁটতে বেরিয়ে মাইক্রোবাসের ধাক্কায় দুই নারীর মৃত্যু হয়েছে। টাঙ্গাইল-জামালপুর মহাসড়কে ধনবাড়ীর নিজবর্ণী এলাকায় সকাল ৮টার দিকে এ দুর্ঘটনা ঘটে বলে জানান, ধনবাড়ী থানার ওসি মজিবর রহমান। নিহতরা হলেন – নিজবর্ণী এলাকার বাবুল বকলের স্ত্রী রেবা বেগম (৩২) ও বেলুটিয়া এলাকার মজিদের স্ত্রী সাহাতন (৫০)।

সিরাজগঞ্জের রায়গঞ্জে বাস ও মাইক্রোবাসের সংঘর্ষে একই পরিবারের তিনজনসহ চারজনের মৃত্যু হয়। বুধবার রাত ২টার দিকে হাটিকুমরুল-বগুড়া মহাসড়কের রয়হাটি এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে বলে জানান, হাটিকুমরুল হাইওয়ে থানার ওসি আব্দুল কাদের জিলানি। নিহতরা হলেন – সোলায়মান হোসেন (৬৫), হারুনের স্ত্রী লিলি আক্তার (৩৫), ছেলে সাগর (১২) ও মাইক্রোবাসের চালক আব্দুল খালেক (৩২)।

রাজশাহীর পুঠিয়া উপজেলায় ট্রাকচাপায় দুই মোটরসাইকেল-আরোহীর মৃত্যু হয়। নিহতরা হলেন – রাজশাহী শহরের রামচন্দ্রপুর এলাকার আবদুল লতিফের ছেলে তুষার (৩০) ও নাজমুলের ছেলে শাহীন (৩৫)।

বৃহস্পতিবার বেলা ১২টার দিকে বানেশ্বর ইউনিয়নের পোল্লাপুকুরে এ দুর্ঘটনা ঘটে বলে জানান হাইওয়ে পুলিশের শিবপুরহাট ফাঁড়ির সার্জেন্ট মনিরুজ্জামান। “রাজশাহী-ঢাকা মহাসড়কের পোল্লাপুকুর এলাকায় একটি ট্রাক পেছন থেকে মোটরসাইকেলকে ধাক্কা দিলে দুমড়েমুচড়ে যায়। ঘটনাস্থলেই তুষার ও শাহীনের মৃত্যু হয়।” পুলিশ ট্রাকটি জব্দ করলেও চালক ও সহকারী পালিয়ে গেছে বলে ওসি জানান।

রাজধানী ঢাকার গুলিস্তান জিরো পয়েন্টে যাত্রীবাহী বাসের সঙ্গে অটোরিকশার সংঘর্ষে একজন নিহত হন। নিহত মো. জামাল হোসেন (৪০) ওই অটোরিকশার চালক ছিলেন।

Please follow and like us:

Related posts

Leave a Comment