আজ ৪ ঘণ্টা উন্মুক্ত থাকবে হলি আর্টিজান

কালো রাতের ১টি বছর

আজ শনিবার ৪ ঘণ্টা উন্মুক্ত থাকবে হলি আর্টিজান

২০১৬ সালের ১লা জুলাই। বাংলাদেশের ইতিহাসে এক কালো দিন। সেদিন যেই নৃশংসতার দেখা মিলেছিল তা বাঙালি জাতির মনে আজীবন দাগ কেটে থাকবে। ১ জুলাই রাতে হলি আর্টিজান রেস্টুরেন্টে সশস্ত্র হামলা চালায় পাঁচ জঙ্গি। জঙ্গিরা নয়জন ইতালিয়ান, সাতজন জাপানি, একজন ভারতীয় নাগরিক এবং তিন বাংলাদেশি ও দুজন পুলিশ কর্মকর্তাসহ মোট ২২ জনকে নির্মমভাবে হত্যা করে।

সেই ঘটনার পর ১ টি বছর পেরিয়ে গেল। সময় ঘুরে আবারো ১ লা জুলাই। সেদিনের সেই জঙ্গি হামলায় নিহত দেশি-বিদেশি নাগরিকদের শ্রদ্ধা জানাতে ১লা জুলাই শনিবার সকাল ১০টা থেকে দুপুর ২টা পর্যন্ত সবার জন্য রেস্টুরেন্টটি উন্মুক্ত থাকবে বলে কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে। গুলশানের হলি আর্টিভবনের সামনে এজন্য একটি ডায়াস তৈরি করা হয়েছে।

হলি আর্টিসান রেস্টুরেন্টের মালিক সাদাত মেহেদি, ঘটনার পর থেকে গত এক বছর প্রশাসনের নির্দেশে কঠোর নিরাপত্তা বেস্টনীর মধ্যে ছিল রেস্টুরেন্টটি। স্থানটি বাংলাদেশের ইতিহাসে স্পর্শকাতর ও সংবেদনশীল হিসেবে বিবেচিত হবে মনে করেই কর্তৃপক্ষ শ্রদ্ধা নিবেদনের জন্য উন্মুক্ত রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এই দিনে প্রতি বছর স্থানটিকে উন্মুক্ত রাখা হবে।

মালিকদের একজন আলী আর্সলান বলেন, ‘এক বছর আগে এদিন এখানে অনেক দেশি-বিদেশি মানুষকে নির্মমভাবে হত্যা করা হয়। তাদের স্বজনেরা শ্রদ্ধা জানাতে আসবেন। মূলত এ বিষয়টি মাথায় রেখে সব মালিক বসে চার ঘণ্টা খোলা রাখার সিদ্ধান্ত হয়েছে। ৭৯ নম্বর সড়কের ৫ নম্বর প্লটের বাড়িটির সামনে সাদা কাপড়ে মোড়ানো লম্বা আকৃতির একটি ডায়াস তৈরি করা হয়েছে।’

বিষয়টি নিশ্চিত করে গুলশান কূটনৈতিক বিভাগের উপ-কমিশনার (ডিসি) মো. জসিম উদ্দিন বলেন, নিহতদের আত্মীয়-স্বজন, বন্ধু-বান্ধবসহ পরিচিতরা আসবেন হালি আর্টিসানে। এ জন্য আর্টিসান এলাকায় নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করা হয়েছে।

Please follow and like us:

Related posts

Leave a Comment