অবৈধভাবে বালু উত্তোলনে হুমকির মুখে বঙ্গবন্ধু সেতু

গাইড বাঁধে ফের ধস, হুমকিতে বঙ্গবন্ধু সেতু

বঙ্গবন্ধু সেতুর সংলগ্ন এলাকা থেকে অবৈধভাবে বালু তোলায় ঠেকানো যাচ্ছে না সেতুটির গাইড বাঁধের ধস। বালু তোলার ফলে বাঁধটির তলা মাটিশূন্য হয়ে পড়েছে। এতে বারবার ধসের সৃষ্টি হচ্ছে। শনিবার রাতে বঙ্গবন্ধু সেতু গাইড বাঁধে চতুর্থ দফা ভাঙন শুরু হয়েছে। এতে প্রায় ১০০ মিটার নদীগর্ভে বিলীন হয়ে গেছে।

এর আগে তৃতীয় দফা ভাঙনে প্রায় ৪০০ মিটার এলাকা নদীগর্ভে চলে গেছে। এতে বাঁধ এলাকার মানুষদের মধ্যে আতঙ্কের সৃষ্টি হয়েছে। গাইড বাঁধে কয়েক দফা ভাঙনে যমুনা নদীর প্রবাহ পরিবর্তিত হয়েছে। এতে টাঙ্গাইলের কালিহাতী উপজেলার গড়িলাবাড়ী এলাকায় অন্তত ১৫টি বসতভিটা নতুন করে নদীগর্ভে চলে গেছে।

স্থানীয়দের অভিযোগ, গত এক দশক বালুখেকো চক্র বাঁধের কূল ঘেষে বালু তুলে আসছে। এতে বাঁধের নিচের অংশের মাটি সরে যাওয়ায় এ ধসের ঘটনা ঘটছে। সেতু কর্তৃপক্ষের কয়েকজন কর্মকর্তাও এই বালু উত্তোলনের সঙ্গে জড়িত বলেও তাদের অভিযোগ। বাঁধটি ভেঙে যাওয়ায় পানিরপ্রবাহ ব্যাহত হচ্ছে। এতে বঙ্গবন্ধু সেতু হুমকিতে পড়েছে। এছাড়াও বাঁধের পাশের সাতটি গ্রাম গরিলা বাড়ি, বেলটিয়া, আলীপুর, বুরুপ বাড়ি, পৌলির চর, দৌগাতি, বেঁড়িপটল বিলীন হয়ে যাওয়ার উপক্রম হয়েছে।

এ বিষয়ে বঙ্গবন্ধু সেতুর দায়িত্বপ্রাপ্ত প্রকৌশলী ওয়াসিম আলী জানান, বিষয়টি মনিটরিং করা হচ্ছে। ভাঙন রোধে সাময়িকভাবে জিও ব্যাগ ফেলা হচ্ছে। পানি কমে গেলে তখন স্থায়ী ব্যবস্থা নেয়া হবে।


Please follow and like us:

Related posts

Leave a Comment