চাঁপাইনবাবগঞ্জের নাচোলে জমি নিয়ে বিরোধে একজনকে কুপিয়ে হত্যা

নিজস্ব প্রতিবেদক: চাঁপাইনবাবগঞ্জের নাচোল উপজেলার সদর ইউনিয়নের ছাত্রাইডাঙ্গা বিশালপুর গ্রামে মফিজ উদ্দিন (৫০) নামে একজনকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। তিনি ওই গ্রামের মৃত ময়েজ উদ্দিনের ছেলে।

প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে, বসত বাড়ির জমি নিয়ে প্রতিবেশির সাথে পূর্ব শত্রুতার জেরে এই ঘটনা ঘটেছে। পুলিশ ও স্থানীয় সুত্রে জানা গেছে, শনিবার রাতে মফিজ উদ্দিন বাড়ি ফিরছিলেন। এসময় বাড়ির নিকটে পাকা সড়কের উপর কয়েকজন দুর্বৃত্ত তাকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে গুরুতর জখম করে পালিয়ে যায়। স্থানীয়রা মফিজকে উদ্ধার করে প্রথমে নাচোল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। কিন্তু অবস্থা আশংকাজনক হওয়ায় তাকে রাতেই রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে পাঠানো হয়।

সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রোববার সকালে মারা যান মফিজ উদ্দিন। পরে রামেক হাসপাতাল মর্গে মৃতদেহের ময়নাতদন্ত সম্পন্নের পর রোববার বিকেলে নাচোলে নিজ গ্রামে মফিজ উদ্দিনকে দাফন করা হয়।

এ ঘটনায় নিহতের স্ত্রী তামিমুন (৪০) সোমবার সকালে তাদের প্রতিবেশি মো. দোশিমের দুই ছেলে রেন্টু, সেন্টু সহ ৬ জন ও অজ্ঞাতানামা কয়েকজনকে আসামী করে নাচোল থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন। এজাহারে বসত বাড়ির জমি নিয়ে বিরোধের জেরে প্রতিবেশি রেন্টু, সেন্টুসহ অন্যদের এই ঘটনার জন্য দায়ী করা হয়েছে।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা নাচোল থানার উপপরিদর্শক (এসআই) লালন কুমার দাস সিল্কসিটি নিউজকে জানান, আসামিদের গ্রেপ্তারের অভিযান চলছে। নিহতের সাথে মামলায় প্রধান অভিযুক্তদের পূর্ব থেকেই জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধ ও একাধিক মামলা ছিল বলেও জানান তিনি। সোমবার রাত পর্যন্ত এ ঘটনায় কেউ গ্রেপ্তার হয়নি।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Related posts

Leave a Reply