তরুণীকে পার্কে নিয়ে ট্যাক্সি চালকের ধর্ষণ

ভারতের লাল কেল্লার কাছে একটি পার্কে ২৩ বছর বয়সী এক তরুণী ট্যাক্সি চালক কর্তৃক ধর্ষণের শিকার হয়েছেন। চুন্নু কুমার নামে ওই ট্যাক্সি চালকের বয়স ৩০ বছর বলে জানা গেছে।

পুলিশ ধর্ষক চালককে গ্রেফতার করেছে বলে জানায় এনডিটিভি। গত ১২ সেপ্টেম্বর ধর্ষণের ঘটনাটি ঘটে।

নির্যাতিতা জানান, একটি বাস স্ট্যান্ডে তাকে নামিয়ে দেওয়ার কথা বলে ধর্ষণ করে ট্যাক্সি চালক। লুধিয়ানাতে যাওয়ার জন্য ওই বাস স্ট্যান্ডে আসতে চেয়েছিলেন তিনি।

পুলিশের তদন্তে জানা গেছে, নৈডাতে ভাইয়ের বাড়িতে বেড়াতে এসেছিলেন ওই নারী। তারপর ১১ সেপ্টেম্বর রাতে নয়াদিল্লি রেলওয়ে স্টেশন থেকে লুধিয়ানামুখী ট্রেনের টিকেট কাটেন। ট্রেনটি ১২ সেপ্টেম্বর ভোর সাড়ে ৪টায় ছাড়ার কথা ছিল।

মেয়েটি ওয়েটিং রুমে অপেক্ষা করতে করতে রাত ২টার সময় বের হন। তখন ট্যাক্সি চালক চুন্নু কুমার তার সঙ্গে আলাপ জমানোর চেষ্টা করেন। এক পর্যায়ে সে মিথ্যা বলে যে, সাড়ে ৪টার ট্রেনটি বাতিল করা হয়েছে। চুন্নু আরো বলে, নিকটস্থ বাস স্টেশনে তাকে নামিয়ে দিতে পারবে যেখান থেকে সে লুধিয়ানার বাস ধরতে পারবে।

কিন্তু ট্যাক্সিতে তোলার পর তাকে লাল কেল্লার নিকটবর্তী গোল্ডেন জুবিলি পার্কের নির্জন অংশে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে মেয়েটিকে ধর্ষণ করে ট্যাক্সি চালক। মেয়েটিকে তারপর পুরাতন দিল্লী রেলওয়ে স্টেশনে নামিয়ে দিয়ে পালিয়ে যায় চুন্নু।

ধর্ষিত মেয়েটি পুলিশের কাছে অভিযোগ করে। মেয়েটির অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে শাস্ত্রি পার্ক এলাকার বাসিন্দা চুন্নু কুমারকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

Please follow and like us:

Related posts

Leave a Comment