রাজশাহীতে স্টুডেন্ট কমিউনিটি পুলিশিংয়ের প্রথম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত

0

এস.এম.আব্দুল কাজিম : ‘পুলিশ জনগণ, জনগণই পুলিশ’ এই ধারণাকে ধারণ করে ষ্টুডেন্ট কমিউনিটি পুলিশিংয়ের প্রথম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী-২০১৮ পালিত হয়েছে।  রোববার বেলা ১১টায় কলেজ অডিটরিয়ামে রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশ এবং ষ্টুডেন্ট কমিউনিটি পুলিশিংয়ের উদ্যোগে অনুষ্ঠিত হয়েছে আলোচনা সভা এবং বর্ণাঢ্য সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। স্টুডেন্ট কমিউনিটি পুলিশিং রাজশাহী কলেজ শাখার সভাপতি আব্দুল্লাহ আল নোমানের সভাপতিত্বে এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন আরএমপি পুলিশ কমিশনার মোঃ মাহাবুবর রহমান পিপিএম।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে আরএমপি পুলিশ কমিশনার মাহাবুবর রহমান পিপিএম বলেন, স্টুডেন্ট কমিউনিটি পুলিশিংয়ের মাধ্যমে পুলিশ প্রশাসন ও সাধারণ শিক্ষার্থীদের মাঝে পারস্পারিক সম্পর্ক জোরদার হয়েছে। দেশের উন্নয়ন, মাদক নির্মূল ও জঙ্গিবাদ দমনে ছাত্র-ছাত্রীরা গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতে পারে।

তিনি আরো বলেন, মাদক নির্মূলে শিগগিরই নগরীতে শুরু হতে যাচ্ছে ‘টাফ অ্যাকশন’। এ অ্যাকশনের মাধ্যমে নগরীর চিহ্নিত ও তালিকাভুক্ত মাদক ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। এইজন্য তিনি দ্রুত মাদকব্যবসায়ীদের আত্মসমর্পণের আহ্বান জানান।
মাহাবুবর রহমান বলেন, নগরীতে মাদক ব্যবাসায়ের সঙ্গে বিভিন্ন রাজনৈতিক সংগঠনের কিছু নেতা, পুলিশ বাহিনীর কিছু সদস্যসহ স্থানীয় কিছু প্রভাবশালী লোকের একটি সিন্ডিকেট আছে। এই সিন্ডিকেট ভাঙতে হবে। মাদকের সঙ্গে জড়িত যে কাউকে ধরা গেলে তার বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

ষ্টুডেন্ট কমিউনিটি পুলিশিংয়ের প্রতিষ্ঠাতা বোয়ালিয়া মডেল থানাধীণ মালোপাড়া পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ এস আই নাসির আহম্মেদ তার স্বাগত বক্তব্যে বলেন, গত বছরে ৩রা জানুয়ারী রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশের উদ্যোগে তিনি রাজশাহী মহানগরীতে সর্বপ্রথম রাজশাহী কলেজে স্টুডেন্ট কমিউনিটি পুলিশিংয়ের কার্যক্রম শুরু করেন। পরবর্তীতে পর্যায়ক্রমে আরও ৫টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে এই কার্যক্রম চালু হয়। শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলো হলো রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়, রাজশাহী প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, রাজশাহী সরকারী মহিলা কলেজ, রাজশাহী সরকারী সিটি কলেজ, বরেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়। এ ছাড়াও রাজশাহী মহানগরীর বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছাত্রদের নিয়ে রাজশাহী মহানগর কমিটিও করা হয়েছে । তিনি বলেন দেশের উন্নয়ন, মাদক নির্মূল ও জঙ্গিবাদ দমনে এর আগেও ষ্টুডেন্ট কমিউনিটি পুলিশিং এর ছাত্র-ছাত্রীরা গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছে এবং তারা ভবিষ্যতেও এমন ভূমিকা পালন করবে বলে জানান তিনি।

এসমময় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন রাজশাহী সরকারী কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর মহাঃ হবিবুর রহমান। এছাড়া সম্মানিত অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন আরএমপি’র ডিসি(পশ্চিম)মোঃ আমির জাফর, ডিসি(সিটিএসবি) আবু আহাম্মদ আল মামুন, রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশের মুখপাত্র সিনিয়র সহকারী কমিশনার ইফতে খায়ের আলম,রাজশাহী সরকারী কলেজের ইংরেজী বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ড. সাম্যসার্থী ভৌমিকসহ পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা ও রাজশাহী কলেজের শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা।

অনুষ্ঠানের শুরুতে আরএমপি’র পুলিশ কমিশনার বেলুন ও ফেস্টুন উড়িয়ে প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীর শুভ উদ্বোধন করেন। এরপর আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয় ও স্টুডেন্ট কমিউনিটি পুলিশিংয়ের উপর ডকুমেন্টরি প্রদর্শিত হয়। এছাড়া রাজশাহী সরকারী কলেজের স্টুডেন্টদের নিয়ে “পুলিশী সহায়তা বিষয়ক” শীর্ষক সেমিনার ও মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।



তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

ব্রেকিং নিউজঃ