ধর্ষণ থেকে বাঁচতে যুবকের পুরুষাঙ্গ কেটে দিলেন গৃহবধূ

0

ধর্ষণের হাত থেকে বাঁচতে প্রতিবেশী এক যুবকের যৌনাঙ্গ কেটে দিয়েছেন এক গৃহবধূ। শুক্রবার রাতে মানিকগঞ্জের সাটুরিয়া উপজেলার সাভার গ্রামে চাঞ্চল্যকর এ ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনার পর থেকেই মোসলেম উদ্দিন নামে ওই যুবক গুরুতর আহত অবস্থাতেই গা ঢাকা দিয়েছে। এতে এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে।

ওই গৃহবধূর স্বামী জানান, মোসলেম উদ্দিন পেশায় একজন রাজমিস্ত্রি। বিভিন্ন সময়ে তার স্ত্রীকে মোবাইল ও টাকা পয়সার লোভ দেখিয়ে মেলামেশার সুযোগ খুঁজছিল।

এরই জের ধরে স্বামী-স্ত্রী কৌশল করে শুক্রবার রাত সাড়ে ৮টার দিকে বাড়ির পাশের বাঁশবাগানে মোসলেমকে আসতে বলেন। সেখানে একপর্যায়ে মোসলেম তার স্ত্রীকে ধর্ষণের চেষ্টা চালায়। এ অবস্থায় তার স্ত্রী ব্লেড দিয়ে মোসলেমের পুরুষাঙ্গে আঘাত করে। রক্তাক্ত অবস্থায় মোসলেম দৌড়ে পালিয়ে যায়।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, আহত মোসলেম প্রথমে সাভারের পল্লীচিকিৎসক রনজিত সরকারের কাছে চিকিৎসা নিতে যায়। কিন্তু ডা. রনজিত তাকে হাসপাতালে যাওয়ার পরামর্শ দেন।

ডা. রনজিতের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, আঘাত গভীর ছিল। এ জন্য চিকিৎসা দেয়া সম্ভব হয়নি। এরপর থেকে মোসলেমের খোঁজ পাওয়া যায়নি। তার বাড়ির লোকজনও কোনো বক্তব্য দেয়নি।

ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছেন বড়াইদ ইউপি চেয়ারম্যান মো. হারুন অর রশিদ ও স্থানীয় ইউপি সদস্য আব্দুর রাজ্জাক।

সাটুরিয়া থানা পুলিশের ওসি (তদন্ত) মো. হাসমত উল্যাহ জানান, ঘটনাটি তিনিও শুনেছেন। তবে এ ব্যাপারে কেউ লিখিত অভিযোগ দেয়নি। অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।pbd.news

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

ব্রেকিং নিউজঃ