চাঁপাইনবাবগঞ্জে জামায়াতের ৭ শিবির কর্মী ও মেস মালিক গ্রেপ্তার॥ সাংগঠনিক বই উদ্ধার► (ভিডিও)

0

নিজস্ব প্রতিবেদক : চাঁপাইনবাবগঞ্জ শহরের শাহীবাগ বালিগ্রাম এলাকার একটি মেসে শনিবার ভোরে অভিযান চালিয়ে জিহাদি বই, সাংগঠনিক কাগজপত্রসহ সক্রিয় ৭ জামায়াত-শিবির নেতাকর্মী ও মেস মালিককে গ্রেপ্তার করা হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

পুলিশ আরও জানায়, এঁরা বাংলা নববর্ষের মঙ্গল শোভাযাত্রায় নাশকতা ও সরকারবিরোধী কাজের পরিকল্পনা করছিলেন।

গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন- মেস মালিক ওই এলাকার মৃত. মহসিন আলীর ছেলে জান মোহম্মদ (৬২), সদর উপজেলার নারায়নপুরের নজরুল ইসলামের ছেলে ও নবাবগঞ্জ সরকারী কলেজ শাখা শিবির সভাপতি আব্দুল হামিদ হাসান ওরফে হামান আলী (২৮), একই এলাকার রুহুল আমীনের ছেলে আব্দুল জব্বার (২৫), সদর উপজেলার নরেন্দ্রপুরের গোলাম মোস্তফার ছেলে মো. মিজান(২২), একই এলাকার মো. আলমগীরের ছেলে আব্দুল হামিদ (১৭), জেলার শিবগঞ্জ উপজেলার কিরনগঞ্জের মরফুল হোসেনের ছেলে মনিরুল ইসলাম (৩০), জেলার নাচোল উপজেলার ঝিকড়া মধ্যপাড়ার বেলাল উদ্দিনের ছেলে সুমন রেজা (২৫) জেলার গোমস্তাপুর উপজেলার শ্যামপুর বাঙ্গাবাড়ির রফিকুল ইসলামের ছেলে মো. মোস্তাকিম (২৫)।

শনিবার বিকেল চারটায় পুলিশ সুপার কার্যালয়ে এক প্রেস ব্রিফিং-এ এসব তথ্য জানান অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মাহবুব আলম। এসময় বিপুল পরিমাণ জিহাদি বই, বিভিন্ন রকম সাংগঠনিক কাগজ, চাঁদা আদায়ের রশিদ, ভাউচার সহ গ্রেপ্তারকৃতদের হাজির করা হয়।

তিনি বলেন, গোপন বৈঠকের গোপন খবরের ভিত্তিতে ভোর সাড়ে চারটায় জেলা গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি) এই অভিযান চালায়।

সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার বলেন, গোপন সংবাদ, জিজ্ঞাসাবাদ ও জব্দ কাগজপত্র বিশ্লেষণ করে মঙ্গল শোভাযাত্রায় নাশকতা ও সরকার বিরোধী কাজে গ্রেপ্তারকৃতরা পরিকল্পনা করছিলেন বলে পুলিশ প্রাথমিকভাবে নিশ্চিত হয়েছে। নিয়মানুযায়ী পুলিশকে না জানিয়ে মেস পরিচালনার দায়ে মেস মালিককে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। গ্রেপ্তারকৃতদের বিরুদ্ধে সদর থানায় বিশেষ ক্ষমতা আইনে মামলা করা হয়েছে বলেও জানান অতিরিক্ত পুলিশ সুপার।

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

ব্রেকিং নিউজঃ