প্রেমিকের আত্মহত্যার খবর শুনে চলে গেলেন প্রেমিকাও

0

নাটোরের লালপুর উপজেলায় প্রেমিকের আত্মহত্যার খবর শুনে প্রেমিকাও আত্মহত্যা করেছেন।

আজ রবিবার উপজেলার নবীনগর ও রামগাড়ি গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত প্রেমিক এজাজুল করিম (২২) লালপুর উপজেলার নবীনগর গ্রামের আনছার আলীর ছেলে। সে পাবনা পলিটেকনিক্যালের সিভিল শাখার তৃতীয় বর্ষের ছাত্র। তার প্রেমিকা একই উপজেলার রামাগাড়ি গ্রামের বাসিন্দা পাটিকাবাড়ি বেলায়েত খান উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির ছাত্রী পপি খাতুন। তার বাবা সাজদার আলী।

জানা যায়, শনিবার রাতে এজাজুল তার বাবাকে পপির সঙ্গে বিয়ে দেয়ার কথা বলেন। বাবা আনছার আলী রাজি না হওয়ায় এজাজুল অভিমানে ঘরের আড়ার সঙ্গে ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেন। আজ রবিবার সকালে এজাজুলের মরদেহ উদ্ধার করে লালপুর থানা পুলিশ।

এদিকে প্রেমিকের আত্মহত্যার খবর শুনে পপি সকাল ১০টার দিকে ঘরের আড়ার সঙ্গে গলায় ওড়না পেঁচিয়ে ফাঁসি দেয়। পরিবারের লোকজন টের পেয়ে পপিকে উদ্ধার করে ঈশ্বরদী হাসপাতালে নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

লালপুর থানা পুলিশের ওসি আবু ওবায়েদ জানান, এজাজুলের আত্মহত্যার খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে পুলিশ মরদেহ উদ্ধার করে নিয়ে আসার কিছুক্ষণ পরই পপির মৃত্যুর খবর পাওয়া যায়। দুইজনের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে।

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

ব্রেকিং নিউজঃ