বাঙালির প্রাণের উৎসব চাঁপাইনবাবগঞ্জে বর্ষ বরণের শোভাযাত্রা

0

অসাম্প্রদায়িক বাঙালির সবচেয়ে বড় উৎসব পহেলা বৈশাখ। আর নানা আয়োজনের মধ্যদিয়ে পুরাতন বছরের সকল গ্লানি মুছে বাংলা নববর্ষকে বরণ করতে চাঁপাইনবাবগঞ্জে সব বয়সের মানুষ উৎসবে মেতে উঠে। বর্ষবরণ উপলক্ষে জেলা প্রশাসনের আয়োজনে ঢাক-ঢোল ও বাদ্য’র মধ্যদিয়ে মঙ্গল শোভাযাত্রা বের করে।
সকালে জেলা প্রশাসক কার্যালয় চত্বরের সামনে থেকে শোভাযাত্রাটি নাচ-গান, হাসি-আনন্দে বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিন শেষে গ্রীণ ভিউ উচ্চ বিদ্যালয় সংলগ্ন আম্রকাননে গিয়ে শেষ হয়।
বর্ণিল সাজে সজ্জিত হয়ে শোভাযাত্রায় অংশগ্রহন করে জেলা প্রশাসন, পুলিশ প্রশাসন, চাঁপাইনবাবগঞ্জ পৌরসভা, বিভিন্ন সরকারি দপ্তর, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠন। আবহমান গ্রাম বাংলার সেই ঐতিহ্য গরু গাড়ী, পাল্কি, গ্রামের বধূ, বর-কনে, ঢেঁকি, জাঁতা, লাঙ্গল, মই, ঘুড়িসহ রংবেরং এর ফেস্টুন শোভাযাত্রাকে আকর্ষনীয় করে তোলে। বর্ষবরণের মূল আয়োজন সংগীত, আবৃত্তি ও নৃত্য পরিবেশিত হয়। শিল্পীদের রং তুলিতে তাদের বিভিন্ন স্থানে পহেলা বৈশাখের আল্পনা এঁকে শুভেচ্ছা জানায়।
সাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ গড়ার প্রত্যয়ে বিপুল উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্যদিয়ে বেক্সিমকো ফার্মাসিউটিক্যালের সৌজন্যে বাংলাদেশ মেডিকেল এ্যাসোসিয়েশন চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা শাখা নবাবগঞ্জ ক্লাবে বাঙালির প্রাণের উৎসব বর্ষবরণ পালন করে। সেখানে গ্রাম বাংলার বিভিন্ন খাবার পরিবেশন করা হয়।
এদিকে, সাধারণ পাঠাগারে সাধারণ পাঠাগার ও নাগরিক কমিটি সকালে মুড়ি, মুড়কি, দই, চিড়া ও মিষ্টি খাবারের আয়োজন করা হয় এবং সঙ্গীত ও নৃত্য পরিবেশিত হয়। এছাড়া, সকালে জেলা পরিষদ চত্বরে বর্ষবরণকে ঘিরে সকালে পান্তা ভাতের আয়োজন করে।
দিনভর বর্ষবরণে বিভিন্ন সামাজিক সংগঠন নানান অনুষ্ঠানের আয়োজন করে। তারেক আজিজ

তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

ব্রেকিং নিউজঃ